Header Ads

জামিয়তের কার্যনির্বাহী পরিষদের সভা অনুষ্ঠিত: মুফতী ওয়াক্কাসের নির্বাহী সদস্যপদ স্থগিত

চিত্রে থাকতে পারে: ১ জন, ইন্ডোর
জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ এর কার্যনির্বাহী পরিষদের বৈঠক আজ (৯ ডিসেম্বর) শনিবার সকাল ১০টায় দলের পল্টনস্থ কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে দলের সাংগঠনিক শৃঙ্খলাসহ আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচন উপলক্ষ্যে দলের প্রস্তুতি এবং রাজনৈতিক কৌশল নির্ধারণসহ বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা হয়। বৈঠকে দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গ এবং অসাংবিধানিক কর্মকান্ড পরিচালনার দায়ে সহসভাপতি মুফতী মুহাম্মদ ওয়াক্কাসের নির্বাহী সদস্যপদ স্থগিত করা হয়।
জমিয়তের সভাপতি আল্লামা আব্দুল মোমিন শায়খে ইমাম বাড়ী’র সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত কার্যনির্বাহী পরিষদের বৈঠকে শরীক ছিলেন, মহাসচিব আল্লামা নূর হোসাইন কাসেমী, সহসভাপতি মাওলানা জহিরুল হক ভূঁইয়া, মাওলানা আব্দুর রব ইউসূফী, মাওলানা জুনায়েদ আল হাবীব, সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা উবায়দুল্লাহ ফারুক, যুগ্ম মহাসচিব ম্ওলানা মঞ্জুরুল ইসলাম আফেন্দী, মাওলানা তাফাজ্জুল হক আজিজ, মাওলানা হাফেজ নাজমুল হাসান, মাওলানা মুহাম্মদ উল্লাহ জামী, সহকারী মহাসচিব মুফতি মাসুদুল করীম, মাওলানা আব্দুল বাছির, মাওলানা আতাউর রহমান কোম্পানীগঞ্জী, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা আব্দুল্লাহ হাসান, মাওলানা শাহ জালাল, মাওলানা মতিউর রহমান গাজীপুরী, অর্থ-সম্পাদক মুফতী মুনির হোসাইন কাসেমী, প্রচার সম্পাদক মাওলানা জয়নুল আবেদীন, সমাজ কল্যাণ সম্পাদক আলহাজ আতিকুজ্জামান, শ্রমবিষয়ক সম্পাদক মাওলানা ফেরদাউসুর রহমান, যুব বিষয়ক সম্পাদক মাওলানা শরফ উদ্দীন ইয়াহইয়া কাসেমী, ছাত্র বিষয়ক সম্পাদক  মুফতী নাছির উদ্দিন খান, নির্বাহী সদস্য মাওলানা আব্দুল কুদ্দুস, মাওলানা সানা উল্লাহ মাহমুদী, মুফতী মুহাম্মদ জাকির হোসেন, মুফতী হাসান ফারুক, মাওলানা খলীলুর রহমান মুন্সীগঞ্জ, মাওলানা জামীল আহমদ আনসারী, মাওলানা কবীর আহমদ, মাওলানা আব্দুল জলীল ইউসুফী, মাওলানা আনোয়ার হোসাইন, মাওলানা নজরুল ইসলাম, মাওলানা তৈয়ব আল হোসাইনী, মাওলানা মাহবুবুর রহমান, মাওলানা শিব্বির আহমদ,  মাওলানা ইয়াকুব উসমানী, মাওলানা হায়াত মাহমুদ, মাওলানা মুজিবুর রহমান প্রমুখ।
সভায় সর্বসম্মতিক্রমে দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গ এবং অসাংবিধানিক কর্মকান্ড পরিচালনার দায়ে সহ-সভাপতি মুফতী মুহাম্মদ ওয়াক্কাস-এর দলীয় নির্বাহী সদস্যপদ স্থগিত করা হয় এবং কেন তাকে দল থেকে স্থায়ীভাবে বহিষ্কার করা হবে না- এই মর্মে কারণ দর্শানোর সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। সভায় জমিয়তের সাংগঠনিক কার্যক্রমকে আরো গতিশীল করার লক্ষ্যে কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দের দেশব্যাপী সফরের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়।
সভায় জেরুসালেম সংকট নিয়ে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করে জমিয়ত নেতৃবৃন্দ বলেন, যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প জাতিসংঘের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে গিয়ে সম্পূর্ণ বেআইনীভাবে মুসলিম উম্মাহ’র প্রথম ক্বেবলা পবিত্র মসজিদুল আকসার শহর জেরুসালেমকে ইসরাইলের রাজধানী ঘোষণা দিয়ে বিশ্বের ১৫০ কোটি মুসলমানের বিরুদ্ধে কার্যতঃ যুদ্ধ ঘোষণা করেছেন। জমিয়ত নেতৃবৃন্দ বলেন, যুক্তরাষ্ট্রের এই সিদ্ধান্ত অন্যায়ের পক্ষে এবং আগ্রাসী অবৈধ রাষ্ট্র ইসরাইলকে এক তরফা সমর্থন দেওয়ার শামিল। জমিয়ত নেতৃবৃন্দ অবিলম্বে জেরুসালেমকে নিয়ে মার্কিন প্রেসিডেন্টের সিদ্ধান্ত প্রত্যাহারের দাবী জানিয়ে বলেন, অন্যথায় বিশ্ব মুসলিম ইহুদীবাদী অন্যায় আগ্রাসনের বিরুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়বে এবং এই জন্য যুক্তরাষ্ট্রকেও চড়া মূল্য দিতে হবে।
সভায় রোহিঙ্গা সংকট নিয়েও উদ্বেগ প্রকাশ করে বলা হয়, রোহিঙ্গাদেরকে পূর্ণ নাগরিকত্ব, নিরাপত্তা ও রাষ্ট্রীয় সকল প্রকার নাগরিক সুবিধার নিশ্চয়তা দিয়ে নিজ দেশে ফিরিয়ে নিতে মিয়ানমারকে বাধ্য করতে জোরালো কূটনৈতিক তৎপরতা চালানোর জন্য সরকারের প্রতি আহ্বান জানানো হয়। পাশাপাশি চলমান শীত ও বৃৃষ্টিতে রোহিঙ্গা শরণার্থীদের জন্য পর্যাপ্ত গরম কাপড় এবং খাদ্য ও ঔষধের ব্যবস্থা গ্রহণের জন্যও সরকারের প্রতি আহ্বান জানানো হয়।
Powered by Blogger.