Header Ads

যুক্তরাষ্ট্র কোনো সভ্য রাষ্ট্র নয়: এরদোগান


যুক্তরাষ্ট্র কোনো সভ্য রাষ্ট্র নয় বলে মন্তব্য করেছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়্যিপ এরদোগান।
 
শনিবার ইস্তাম্বুলের হালদুন বিশ্ববিদ্যালয়ের ‘সিভিলাইজেশন ফোরাম’- এ বক্তব্য দেয়ার সময় তিনি এ মন্তব্য করেন। খবর হুররিয়াত ডেইলি নিউজ।
 
এরদোগান বলেন, ‘আমি যুক্তরাষ্ট্রের আমন্ত্রণে দেশটিতে গিয়েছিলাম।  সেখানে আমার ওপর হামলা হয়। আমার নিরাপত্তারক্ষীরা সেই হামলা প্রতিরোধ করে। এ ঘটনায় যুক্তরাষ্ট্র উল্টো  আমার নিরাপত্তারক্ষীদের ওপর গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেছে। এজন্য আমি খুবই দুঃখিত। আর যাই হোক যুক্তরাষ্ট্রকে সভ্য রাষ্ট্র বলা যাবে না।’
 
গত ১৫ জুন যুক্তরাষ্ট্রের একটি আদালত এরদোগানের ১৬ নিরাপত্তারক্ষীর ওপর গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করে।
 
মে মাসে এরদোগানের যুক্তরাষ্ট্র সফরের সময় সেখানে তুরস্কের দূতাবাসের সামনে বিক্ষোভকারীদের সঙ্গে নিরাপত্তারক্ষীদের সংঘর্ষ হয়।
 
এরদোগান অভিযোগ করেন, দূতাবাসের সামনে (কুর্দিস্তান ওয়ার্কার্স পার্টি) পিকেকে ও ফেতুল্লাহ টেরোরিস্ট অর্গানাইজেশন (ফেতো)-এর ৪০ থেকে ৫০ সদস্য একত্রিত হয়ে বিশৃংখলা ও হামলার চেষ্টা করে। 
 
যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের মুসলিম নীতির সমালোচনা করে এরদোগান বলেন, যুক্তরাষ্ট্রে মুসলিমরা বিতাড়িত হচ্ছে। এতে বোঝা যায় দেশটিতে কোনো সমস্যা আছে।
 
উল্লেখ্য, ট্রাম্প ক্ষমতায় আসার পর ৬টি মুসলিম দেশের নাগরিকদের ভিসা বন্ধের আদেশ জারি করা হয়। কিন্তু আদালত সেই নিষেধাজ্ঞা স্থগিত করে। কয়েক দফা এমন ঘটনার পর সর্বশেষ বিষয়টি আদালতে বিচারাধীন রয়েছে।
Powered by Blogger.