Header Ads

দেশের শীর্ষস্থানীয় ৫০ জন আলেমের বিবৃতি- মুফতি ওয়াক্কাস সাহেব অচিরেই নিজের ভুল বুঝতে সক্ষম হবেন


নিউজ শেয়ার অনলাইন ডেস্ক: শতাব্দিকাল হতে ইসলাম, মানবতা, মুসলমান এবং ইসলামী মুল্যবোধের প্রতিনিধিত্ব করে আশা উপমাহাদেশের শতবর্ষি রাজনৈতিক দল 'জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ' এর অভ্যন্তরিণ একটি বিষয় তথা দলের গঠনতন্ত্র হতে নির্বাহী সভাপতির পদ বিলুপ্তি নিয়ে সম্প্রতিক বিবৃতি পাল্টা বিবৃতি চলছে । খবর নিয়ে জানা যায়- দলের বিগত ৭ নবেম্বর ২০১৫ ইং'এর কাউন্সিলে নির্বাচিত হয়ে এই পদে থাকা ব্যাক্তিত্ব মুফতি মুহাম্মদ ওয়াক্কাস সাহেব পদ বিলুপ্তি সংক্রান্ত গত ১৪ নবেম্বরের কার্য নির্বাহী কমিটির মিটিং হতে তাঁর কিছু অনুসারীদের নিয়ে ওয়াকআউট করেন । পরবর্তীতে ঢাকা রামপুরাস্থ নতুনভাগ মাদ্রাসায় বৈঠক করে উনাকে নির্বাহী সভাপতি হিসেবে বহাল রাখা, দলের বর্তমান মহাসচিবের পদত্যাগ এবং সাংগঠনিক সম্পাদকের বহিস্কারের দাবী নিয়ে 'জমিয়ত সুরক্ষা কমিটি'র নামে একটি কমিটি করেন । এ নিয়ে চলছে দলের কেন্দ্র এবং মুফতি ওয়াক্কাস সাহেবের মাঝে বিবৃতি এবং পাল্টা বিবৃতি । এ নিয়ে বিভিন্ন গন মাধ্যমের সাথে মুফতি ওয়াক্কাস সাহেবের একাধিক সাক্ষাতকারে পরিস্কার বুঝা যাচ্ছে- উনাকে স্বপদে বহাল বা মহাসচিব পদে পুনরায় নির্বাচিত করা ছাড়া কেন্দ্রের সাথে কোন রকমে সমজতায় বসবেন না । এদিকে দলের সভাপতি এবং কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দের কথা হলো- দলের সংবিধান ও দলীয় ফোরামের বাহিরে গিয়ে কেউ কিছু করলে এটা গ্রহণযোগ্য নয়, এতে আমাদের কিছু করার নেই । এর দ্বারা সাময়িক ভাবে দলীয় পরিবেশ দুষন ছাড়া কেউ কোন লাভবান হতে পারবেনা । বাংলাদে চলমান সকল কওমী মাদ্রাসার উত্স দারুল উলুম দেওবন্দের রাজনৈতিক বিশাষ প্লাটফ্রম জমিয়তের এই ভঙ্গুর পরিস্থিতি নিয়ে নিউজ শেয়ার ব্যারু রাজনীতির বাহিরে থাকা কওমী ধারার দেশের শীর্ষস্থানীয় ৫০ জন আলেমের সাথে মতবিনিময় করে । সবার একটিই কথা- বাংলাদেশের জমিয়ত এখন অথিতের যেকোন সময়ের চেয়ে শক্তিশালী এবং আশা ব্যাঞ্জক । আর এর পিছনে মুলত কাজ করছে বর্তমান সময়ে হেফাজতে ইসামের আমীর শায়খুল ইসলাম আল্লামা আহমদ শফি দা. বা. এর পরেই দেশের সর্ব মহলে দিত্বীয় মান্যবর ব্যাক্তিত্ব আল্লামা নুর হোসাইন কাসিমীর নেতৃত্ব । ইদানিং দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চল নিয়ে জমিয়তের কাজের ব্যাপকতা দেখে আমরা খুবই আশাবাদী । স্বাধিনতার পর হতে মনে হচ্ছে দেশে জমিয়ত এখনই কিছু করতে পারবে । তবে গত ক'দিন হতে জমিয়ত নেতৃবৃন্দের আপসের মাঝে মন কষাকশি শুনে খুবই খারাপ লাগছে । উভয় পক্ষের খবর নিয়ে যতটুকু জানতে পারলাম তাতে মনে হয় জমিয়তের চলমান বিষয়ে মুফতি ওয়াক্কাস সাহেব কিছুটা ভুল বুঝাবুঝির কারনে বাড়াবাড়ি করছেন । আমাদের আশা মুফতি ওয়াক্কাস সাহেব অচিরেই নিজের ভুল বুঝতে সক্ষম হবেন । অথিতের মত সবার সাথে কাদে কাদ মিলেয়ে কাজ করে যাবেন । মতবিনিময় করা উলামায়ে কেরামদে মাঝে ঢাকা মারকাযুদ দা'ওয়া আল ইসলামীর বিশিষ্ট হাদিস বিশারধ মাওলানা আব্দুল মালিক দা. বা, জামেয়া ফরিদাবাদের মুহতামিম শায়েখ আব্দুল কুদ্দুস দা. বা., কিশোরগঞ্জ জামেয়া ইমদাদিয়ার প্রেন্সিপাল আল্লামা আজহার আলী আনোয়ার শাহ দা. বা., রাবেতা আদব আল আলমী ইসলামীর চ্যায়ারম্যান ও চট্টগ্রাম জামেয়া দা'রুল মা'রিফ আল ইসলামিয়ার প্রেন্সিপাল আল্লামা সুতান জাওক দা. বা., জামেয়া পটিয়ার প্রেন্সিপাল আল্লামা আব্দুল হালিম বুখারী দা. বা. প্রমুখ ।
Powered by Blogger.