Header Ads

মিয়ানমার দূতাবাস ঘেরাওয়ের ঘোষণা হেফাজতে ইসলামের

রোহিঙ্গা মুসলমানদের ওপর নির্যাতন-নিপীড়ন ও গণহত্যা বন্ধ না করলে ঢাকায় অবস্থিত মিয়ানমার দূতাবাস ঘেরাও করা হবে বলে ঘোষণা দিয়েছে হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশ। শনিবার বেলা ১১টার দিকে চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে হেফাজতে ইসলামের কেন্দ্রীয় মহাসচিব জুনাইদ বাবুনগরী এ ঘোষণা দেন।
এ সময় তিনি বলেন, এ গণহত্যা বন্ধ না করলে ১৯ সেপ্টেম্বর ঢাকার মিয়ানমার দূতাবাস ঘেরাও করা হবে। ২১ সেপ্টেম্বর জাতিসংঘ ও ওআইসি মহাসচিবের কাছে স্মারকলিপি দেয়া হবে। এর আগে ১৬ সেপ্টেম্বর সারা দেশে বিক্ষোভ ও গণমিছিলের আয়োজন করা হবে। সরকারের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, গণহত্যা বন্ধ করতে মিয়ানমারের ওপর কঠোর কূটনৈতিক চাপ সৃষ্টি করতে হবে। প্রয়োজনে মিয়ানমারের বিরুদ্ধে জিহাদ ঘোষণারও দাবি জানান জুনাইদ বাবুনগরী।
মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে রোহিঙ্গাদের ওপর যে নির্যাতন চালানো হচ্ছে, তা কিছুতেই মেনে নেয়া যায় না উল্লেখ করে জুনাইদ বাবুনগরী আরও বলেন, এ গণহত্যা বন্ধ না হলে হেফাজতে ইসলামের আমির আল্লামা আহমদ শফির নেতৃত্বে আরাকানমুখী (রাখাইন রাজ্য) লংমার্চ করা হবে।
প্রসঙ্গত, রাখাইনের মং তাও এলাকার বিভিন্ন গ্রামে ২৪টি পুলিশ স্টেশনে গত ২৪ আগস্ট রাতে রোহিঙ্গারা হামলা চালায়। রোহিঙ্গা বিদ্রোহীদের এ হামলার পর নতুন করে সেনা অভিযান শুরু হয়। অভিযানে নারী ও শিশুসহ অসংখ্য রোহিঙ্গা নিহত হয়। জীবন বাঁচাতে ইতিমধ্যে দুই লাখ ৭০ হাজার রোহিঙ্গা বাংলাদেশে প্রবেশ করেছে বলে ধারণা করছে জাতিসংঘ।
বিডি-প্রতিদিন
Powered by Blogger.