Header Ads

মিয়ানমারের আকাশসীমা লঙ্ঘনে ভয়ের কিছু নেই: হানিফ

আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ বলেছেন, মিয়ানমার বাংলাদেশের আকাশসীমা অতিক্রম করেছে এটা নিয়ে ভয়ের কিছু নেই।বহির্বিশ্বের যেকোনো অপতৎপরতা রুখে দেওয়ার মতো সামর্থ্য বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর আছে।
শনিবার সকালে পবিত্র ঈদুল আজহার নামাজ শেষে কুষ্টিয়ায় সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি একথা বলেন।সকাল ৮টায় কুষ্টিয়া কেন্দ্রীয় ঈদগাহে ঈদের প্রধান জামাতে যোগ দেন আওয়ামী লীগের এই নেতা।মাহবুব উল আলম হানিফ জানান, বাংলাদেশে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের ব্যাপারে সরকারের যা করণীয় সরকার তা করছে। আরাকান রাজ্যে মুসলমানদের ওপর যে নির্যাতন করা হচ্ছে সে ব্যাপারে আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলো এগিয়ে আসবে বলেও আশা প্রকাশ করেন তিনি।
কুষ্টিয়া জেলা প্রশাসক মো. জহির রায়হান, জেলা জজ কোর্টের পিপি অ্যাডভোকেট আখতারুজ্জামান মাসুমসহ আওয়ামী লীগের স্থানীয় নেতারা নামাজে অংশগ্রহণ করেন। নামাজ শেষে হানিফ এলাকাবাসীর সঙ্গে কোলাকুলি করে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করেন।
পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানায়, গত কয়েক দিনে তিন দফায় মিয়ানমারের হেলিকপ্টার বাংলাদেশের আকাশসীমা লঙ্ঘন করেছে। এর মধ্যে গত ২৭ ও ২৮ আগস্ট এবং ১ সেপ্টেম্বর সকালে তিনবার কক্সবাজারের উখিয়া সীমান্তে জড়ো হওয়া রোহিঙ্গাদের ওপর দিয়ে উড়ে যায় মিয়ানমারের হেলিকপ্টার।
বিষয়টি নজরে আসার পর কড়া প্রতিবাদ জানিয়ে ঢাকায় মিয়ানমার দুতাবাসে ‘ডিপ্লোমেটিক নোট’ পাঠিয়েছে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। প্রতিবাদপত্রে বলা হয়েছে, এভাবে আকাশসীমা লঙ্ঘন প্রতিবেশীসুলভ আচরণ নয় এবং তা অনাকাঙ্ক্ষিত পরিস্থিতি তৈরি করবে। বাংলাদেশ যখন সীমান্ত সুরক্ষিত রাখতে মিয়ানমারকে সহায়তা করে আসছে, তখন এই ধরণের আচরণ নিজেদের পারস্পরিক বোঝাপড়া ও সহযোগিতাকে ব্যাহত করবে বলেও প্রতিবাদপত্রে উল্লেখ করা হয়েছে।
গত ২৪ আগস্ট থেকে মিয়ানমার সেনাবাহিনী রাখাইনে সংখ্যালঘু মুসলিম রোহিঙ্গাদের ওপর নির্যাতন শুরু করে। নির্যাতনের মুখে বাংলাদেশ সীমান্তের জিরো পয়েন্টে হাজার হাজার রোহিঙ্গা অবস্থান নেন।
উৎসঃ   purboposhchimbd
Powered by Blogger.