Header Ads

রোহিঙ্গাদের খাদ্য সহায়তা বন্ধ করলো জাতিসংঘ

নিরাপত্তাহীনতার অভিযোগ দেখিয়ে মিয়ানমারে নির্যাতিত রোহিঙ্গাদের জন্য খাদ্য সহায়তা স্থগিত করেছে জাতিসংঘের বিশ্ব খাদ্য কর্মসূচি (ডব্লিউএফপি)।
মিয়ানমার সরকার অভিযোগ করেছে, রোহিঙ্গা যোদ্ধাদের হাতে ডব্লিউএফপি খাবার সরবরাহ করছে।এরই প্রেক্ষিতে খাবার সরবরাহ বন্ধ করলো সংস্থাটি।
তবে মিয়ানমার সরকারের এ অভিযোগ অস্বীকার করেছে জাতিসংঘের বিশ্ব খাদ্য কর্মসূচি।
এদিকে,যতদ্রুত সম্ভব খাদ্য সাহায্য চালু করা হবে বলে জানিয়েছে সংস্থাটি। ডব্লিউএফপি এক বিবৃতিতে বলেছে, আমরা যত দ্রুত সম্ভব আক্রান্ত সব সম্প্রদায় ও সাম্প্রতিক অস্থিরতায় নতুন করে ক্ষতির শিকার লোকজনের মধ্যে পুনরায় ত্রাণ বিতরণ শুরু করতে কর্তৃপক্ষের সঙ্গে সমন্বয় করছি।
বিবৃতিতে বলা হয়েছে, খাদ্য সহায়তা কর্মসূচি স্থগিত করায় অন্য ঝুঁকিপূর্ণ ও অভ্যন্তরীণ বাস্তুচ্যুত আড়াই লাখ মানুষের ওপর প্রভাব পড়বে।
উল্লেখ্য, জাতিগত নিধনের শিকার রোহিঙ্গা বিদ্রোহীরা গত ২২ আগস্ট মিয়ানমার পুলিশের ৩১টি নিরাপত্তা চৌকিতে একযোগে হামলা চালায় এমনটি দাবি করে রোহিঙ্গা মুসলিমদের বিরুদ্ধে ব্যাপক রক্তক্ষয়ী অভিযান শুরু করেছে দেশটির সেনাবাহিনী।
এরই মধ্যে প্রাণ বাঁচাতে বাংলাদেশে পাড়ি দিয়েছে হাজার হাজার নির‌্যাতিত রোহিঙ্গা ।

জাতিসংঘের শরণার্থী বিষয়ক সংস্থা ইউএনএইচসিআর বলছে, সম্প্রতি মিয়ানমার থেকে প্রায় ৫৮ হাজার ৬০০ মানুষ বাংলাদেশে পালিয়ে এসেছেন।
আরএম
Powered by Blogger.