Header Ads

কাতারের বিরুদ্ধে দাঁড়াতে সৌদি প্রিন্সকে বাধ্য করা হয়েছে: ওয়ালস্ট্রিট জার্নাল

কাতারের বিরুদ্ধে দাঁড়াতে সৌদি প্রিন্সকে বাধ্য করা হয়েছে: ওয়ালস্ট্রিট জার্নাল


কাতারের বিরুদ্ধে অবরোধ আরোপে সৌদি প্রিন্স মোহাম্মদ বিন সালমানকে বাধ্য করা হয়েছে বলে এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে ওয়ালস্ট্রিট জার্নাল।
আন্দ্রে ক্রেইগ নামে উপসাগরীয় একজন বিশেষজ্ঞের বরাতে মার্কিন পত্রিকাটি জানিয়েছে, ইহুদীবাদী রাষ্ট্র ইসরাইলের ঘনিষ্ঠ দুবাইয়ের ক্রাউন প্রিন্স মোহাম্মদ বিন নায়েফের মাধ্যমে মূলত ইসরাইল ও আমেরিকার প্রশাসন সৌদি প্রিন্সের সাথে সমঝোতা করে।
অবরোধের আগে কাতারের আমীর তামিমের সাথে সৌদি প্রিন্স বিন সালমানের ঘনিষ্ঠ পারিবারিক সম্পর্ক ছিল। তার একই রকম ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক ছিল দুবাইয়ের প্রিন্স বিন নাহিয়ানের সাথেও। কিন্তু অবরোধ আরোপের কয়েকদিন আগে সৌদি ও দুবাইয়ের প্রিন্সের মধ্যে একটি বৈঠক হয়। তাতে সৌদি প্রিন্সকে অপশন দিয়ে দুবাইয়ের প্রিন্স বলেন, বন্ধু হিসেবে হয়তো কাতারকে নয় তো আরব আমিরাতকে বেছে নিতে হতে সৌদি আরবের।
এটা ছিল অনেকটা বাধ্য করার মতো। আমেরিকা ও ইসরাইল ‍দুবাই প্রিন্সে পক্ষে কাজ করছে এটা জানাই ছিল সৌদি প্রিন্সের। এদের দাবি অস্বীকার করলে তার রাজনৈতিক ভবিষ্যত সামনে এগুনো কঠিন হয়ে যাবে। এমতাবস্থায় কাতারকে বন্ধু্ত্বের তালিকা থেকে বাদ দিতে বাধ্য হন সৌদি প্রিন্স বিন সালমান।
Powered by Blogger.