Header Ads

দুই ছাত্রীর প্রাণ বাঁচিয়ে সাগরে ভেসে গেল চুয়েট ছাত্র

  • অপরিচিত দুই মেয়েকে বাঁচাতে গিয়ে চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডে সাগরে ভেসে গেলেন চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (চুয়েট) ছাত্র নাকীব বিন খাব্বাব।

  • মঙ্গলবার দুপুরে সীতাকুণ্ডের মুরাদপুর ইউনিয়নের গুলিয়াখালী সাগর পাড়ে এ ঘটনা ঘটে।
  • খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের দুটি ইউনিট উদ্ধার তৎপরতা শুরু করলেও নাকীব বিন খাব্বাবের খোঁজ পাওয়া যায়নি।
  • খাব্বার কুমিল্লার ইবনে তাইমিয়া স্কুল এন্ড কলেজের অধ্যক্ষ শফিকুল আলম হেলাল ছেলে। তার বাড়ি বরুড়া উপজেলায়।
  • প্রত্যক্ষদর্শী সূত্র জানায়, মঙ্গলবার সকালের দিকে গুলিয়াখালী সাগর পাড়ে চুয়েটের কয়েকজন শিক্ষার্থী  বেড়াতে আসে। দুপুর ২টার দিকে সাগর পাড়ে বেড়ানোর সময় তারা অন্য দুটি অপরিচিত মেয়েকে সাগরে ডুবে যেতে দেখেন।
  • এসময় চুয়েট ছাত্র খাব্বাব ও ইমতিয়াজ সেখানে ছুটে গিয়ে তাদেরকে পানি থেকে তোলার চেষ্টা করেন। কিন্তু তারাও পানিতে ডুবে যেতে থাকেন।
  • তাদের সহপাঠীরা চিৎকার শুরু করলে স্থানীয় জেলেরা এসে দুটি মেয়ে ও ইমতিয়াজকে উদ্ধার করলেও ভেসে যান খাব্বাব (২৩)।
  • খাব্বারের এক সহপাঠী সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের চতুর্থ বর্ষের ছাত্র ফারহান লাবীব বলেন, তারা ১০ শিক্ষার্থী ব্যক্তিগত উদ্যোগে এখানে বেড়াতে যান।
  • সীতাকুণ্ড ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের লিডার কৃষ্ণ প্রদাস তলাপাত্র জানান, খবর পেয়ে তারা ও আগ্রাবাদের দুটি টিম এসে উদ্ধার তৎপরতা শুরু করেন। কিন্তু তাকে পাওয়া যাচ্ছে না। তাদের চেষ্টা অব্যহত রয়েছে।
  • সীতাকুণ্ড থানার এসআই মো. সাইফুল্লা জানান, খবর পেয়ে তিনি ঘটনাস্থলে গেছেন। কিন্তু ওই ছাত্রের খোঁজ পাওয়া যায়নি।
Powered by Blogger.